১২৫ সিসির ইঞ্জিন নিয়ে বাজারে হাজির হিরোর নয়া স্কুটার ডেস্টিনি

নিজস্ব প্রতিবেদন

২৩ অক্টোবর, ২০১৮, ১৫:৫৩
শেষ আপডেট: ২৩ অক্টোবর, ২০১৮, ১৫:৫৬

ভারতের বাজারে স্কুটি, স্কুটার অনেকদিন ধরে থাকলেও সাম্প্রতিককালে যেভাবে একটু ক্ষমতাশালী ইঞ্জিনের স্কুটারের চাহিদা বাড়ছে।


এই প্রথম ওড়িশাতে পেট্রলের থেকে বেশি দামে ডিজেল বিক্রি হল। আর ওই দিনেই হিরোর তরফে বাজারে এল নতুন স্কুটার ‘ডেস্টিনি’। এই প্রথম হিরো ১২৫ সিসি ইঞ্জিনের স্কুটার নিয়ে এল বাজারে। দু’টি মডেল, এলএক্স এবং ভিএক্স-এর দাম যথাক্রমে ৫৪ হাজার ৬৫০ এবং ৫৭ হাজার ৫০০ টাকা। হিরো ডেস্টিনি-র ডিজাইন থেকে নির্মাণ, পুরোটাই হয়েছে ভারতবর্ষে, জয়পুরে।

ভারতের বাজারে স্কুটি, স্কুটার অনেকদিন ধরে থাকলেও সাম্প্রতিককালে যেভাবে একটু ক্ষমতাশালী ইঞ্জিনের স্কুটারের চাহিদা বাড়ছে, তাতে আরও বেশি ১২৫ সিসির স্কুটার আসতে চলেছে বাজারে। ফেব্রুয়ারি মাসে প্রথম যখন হিরো ডুয়েট ১২৫ সিসি প্রথমবার আত্মপ্রকাশ করে,তার ডিজাইন অনেকটা ডুয়েট ১১০ থেকে অনুপ্রাণিত হলেও ডেস্টিনি-র বডি প্যানেল, স্টাইল অন্যরকম। বৈশিষ্ট্যের তালিকায় রয়েছে ইন্টিগ্রেটেড ব্রেকিং সিস্টেম (আইবিএস), আংশিক ডিজিটাল স্পিডোমিটার, এক্সটার্নাল ফুয়েল ফিলিং সিস্টেম ইত্যাদি। তবে, ভারতের বাজারে প্রথম বার ডিজিটাল ইঞ্জিন স্টার্ট/স্টপ করার ব্যবস্থা এনে ডেস্টিনি ১২৫ নিজের তুলনা নিজেই! স্কুটার দাঁড়িয়ে থাকলে ৩০ সেকেন্ড পর নিজে থেকেই ইঞ্জিন বন্ধ হয়ে যাবে। ফলে সিগন্যাল থেকে পার্কিং, অকারণে দাঁড়িয়ে থেকে তেল নষ্ট করার দিন শেষ। ফলে অবিশ্বাস্য প্রায় ১০০ কিমি/লিটার মাইলেজের ঘোষণা না করে একেবারে প্রতি দিনের সাধারণ ব্যবহারে প্রতি লিটার তেলে স্কুটার ৫১ কিমি যেতে পারবে বলে কোম্পানির দাবি। ভিএক্স মডেলে বুট লাইট, মোবাইল ফোন চার্জিং পয়েন্ট, ডুয়াল টোন সিটের মতো বৈশিষ্ট্য হাজির।কোনও মডেলেই এখনও ডিস্ক ব্রেক না এলেও কোম্পানির তরফে জানানো হয়েছে, ডিস্ক ব্রেকের চাহিদার কথা মাথায় রাখা হয়েছে।

কোম্পানির তরফে জানানো হয়েছে, হিরোর নতুন বাইক এক্সট্রিম ২০০আর বের করার কিছু দিনের মধ্যেই ডেস্টিনি ১২৫ বাজারে আনা হয়েছে। ফলে বাইক বা স্কুটার, দু’দিকেই বাজারে সেরা হওয়ার চেষ্টা চলছে পুরোদমে। ডেস্টিনি ১২৫ ভারতের প্রথম স্কুটার যাতে আই৩এস রয়েছে, ফলে তেল সাশ্রয়ী যেমন হবে, তেমনই স্মার্ট হবে ডেস্টিনি! গাড়ির চাবিতেও রয়েছে বেশ কিছু বৈশিষ্ট্য— গাড়ির লক, স্টিয়ারিং লক, বুট অথবা তেল ভরার ঢাকনা খোলা, সবটাই এই চাবি দিয়ে করা যাবে।

আরও পড়ুন: রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর এই গাড়িতে চড়তেন! এর বৈশিষ্ট্য জানেন?​

আরও পড়ুন: বেশি মাইলেজ পাবার ২০টি টিপস!​

১২৫ সিসি স্কুটারের বাজারে এই মুহূর্তে সব থেকে কম দামে(এক্সশোরুম) হাজির ডেস্টিনি, স্বাভাবিক ভাবেই বাজার ধরার চেষ্টায় । কিন্তু বাজারে হাজির টিভিএস এনটর্ক, হোন্ডা অ্যাক্টিভা অথবা সুজুকি এক্সেস, এই তিনের সঙ্গে একেবারে সরাসরি প্রতিপক্ষ ডেস্টিনি! ১২৫ সিসির ইঞ্জিনের এই বাজারের চাহিদা এতই, আরও বেশি সংখ্যক কোম্পানির আরও বেশি স্কুটার অল্প দিনের মধ্যেই হাজির হলেও অবাক হওয়ার কিছু নেই। ফলে আশা করা যায়, দাম কমিয়ে বৈশিষ্ট্য বাড়িয়ে বাজার ধরার চেষ্টায় আরও ভাল স্কুটার আসতে চলেছে বাজারে। হিরো ১২৫ সিসি-তেই আর একটু দামি একটি স্কুটার মাস্তেরও ১২৫ আসতে চলেছে কিছু দিন বাদে। আপাতত দেখা যাক ডেস্টিনি ১২৫ কী ভাবে বাজার ধরতে পারে তারনতুন সমস্ত বৈশিষ্ট্য নিয়ে।