আড্ডা আর প্রচুর খাওয়া, এটাই আমার পুজো, বলছেন ঋদ্ধিমা

নিজস্ব প্রতিবেদন

১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮ ১০:১৭
শেষ আপডেট: ২৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ ১৪:০৪

বিয়ের পর এটাই প্রথম পুজো গৌরব চক্রবর্তী এবং ঋদ্ধিমা ঘোষের।


নভেম্বর, ২০১৭। বিয়ে করেছিলেন গৌরব চক্রবর্তী এবং ঋদ্ধিমা ঘোষ। টলিউডের এই তারকা দম্পতি বিয়ের আগে থেকেই বন্ধু। দীর্ঘ প্রেম পরিণতি পেয়েছে দাম্পত্যে। বিয়ের পর এটাই তাঁদের প্রথম পুজো। স্বভাবতই খুবই স্পেশ্যাল।

তবে গৌরব-ঋদ্ধিমা বিয়ের আগে যেমন বন্ধু ছিলেন, বিয়ের পরও তাঁরা বন্ধু। বন্ধুত্বটাই তাঁদের সম্পর্কের চাবিকাঠি। এত দিন ছিল বন্ধুত্বের পুজো। আর এ বার দাম্পত্যের...। কতটা আলাদা সে অনুভূতি? দুর্গাপুজো তো সবচেয়ে বড় উত্সব। তার জন্য কী ভাবে প্রিপারেশন নিচ্ছেন? মন খুলে শেয়ার করলেন ঋদ্ধিমা।

‘‘পুজোয় এ বার কলকাতায় আছি। সাধারণত থাকি না। তবে এ বছর নবমী পর্যন্ত আছি। তা ছাড়া একটা ফ্যামিলি ট্রিপও প্ল্যান হচ্ছে। বেণুকাকু, মিঠু আন্টি আমি আর গৌরব। উই মাইট বি গোয়িং টু আফ্রিকা,’’ বললেন ঋদ্ধিমা।

আরও পড়ুন: পুজোর প্রেম নিয়ে আমার কোনও নস্ট্যালজিয়া নেই: অর্ণ

আরও পড়ুন: পুজোর ছুটিতে বন্ধুদের সঙ্গে নিরালায় দেদার মজা করব: মিমি

তবে দুর্গাপুজো মানে ঋদ্ধিমার কাছে আড্ডা। সারা বছর যে বন্ধুদের সঙ্গে দেখা হয় বা যাদের সঙ্গে দেখা হয় না, সকলের সঙ্গে আড্ডাটাই পুজোর মূল আকর্ষণ। তাঁর কথায়, ‘‘কলকাতায় থাকলে দিনের বেলা টুকটাক কাজকর্ম থাকে। কিন্তু সন্ধেবেলা হয় আমার বাড়ি বা কোনও বন্ধুর বাড়ি বসে আড্ডা...। এটাই আমার পুজো। সঙ্গে অবশ্যই প্রচুর খাওয়াদাওয়া।’’

অর্থাত্, নায়িকা সুলভ ডায়েটিং থেকে অন্তত পুজোর ক’দিন দূরে থাকতেই পছন্দ করেন ঋদ্ধিমা। তবে সাজগোজের ব্যাপারে ট্র্যাডিশনাল লুকই তাঁর পছন্দ। ঋদ্ধিমা শেয়ার করলেন, ‘‘পুজোর দিনগুলোতে বাড়িতে যখন আড্ডা মারি তখন ক্যাজুয়ালি থাকি। কিন্তু বেরতে হলে ট্র্যাডিশনাল ড্রেস মাস্ট। স্পেশালি অঞ্জলি দিতে হলে তো শাড়িই পরি...।’’