পুজোয় কী ভাবে ঢেকে দেবেন ডবল চিন?

সাবেরী গঙ্গোপাধ্যায়

১৩ অক্টোবর, ২০২০, ১৬:৪৮
শেষ আপডেট: ১৩ অক্টোবর, ২০২০, ১৬:৫৯

সাজ যেমনই হোক না কেন, ডবল চিনের চোটে চেহারায় কেমন যেন একটা বুড়ি বুড়ি ভাব এসে যায়।


হাতে আর মাত্র কয়েকটা দিন! তার পরেই হইহই করে শুরু হয়ে যাবে পুজোর মরসুম। এই করোনাকালে প্যান্ডেল হপিং না হলেও হাউজ পার্টি, পারিবারিক আড্ডা তো চলবেই। কোন দিন কী পরবেন, কেমন সাজবেন, ইতিমধ্যেই সব রেডি।

চিন্তায় ফেলছে শুধু ডবল চিন! সাজ যেমনই হোক না কেন, ডবল চিনের চোটে চেহারায় কেমন যেন একটা বুড়ি বুড়ি ভাব এসে যায়। উপায় একটাই। নিখুঁত মেকআপে তাকে ঢেকে ফেলা। চলুন, দেখে নেওয়া যাক ডবল চিন ঢাকার কিছু মেকআপ টিপস।

১) গাল ও চোখে নজর দিন: ডবল চিন ঢাকার সবচেয়ে ভাল উপায় মুখের অন্যান্য অংশ হাইলাইট করা। চোখে ডার্ক মেক আপ বা স্মোকি আইজ করলে সকলের নজর আগে চোখের দিকেই যাবে। সেই সঙ্গেই পোশাকের রং মিলিয়ে গালে বুলিয়ে নিন ব্লাশ অন। ত্বকের রঙের সঙ্গে মানানসই গোলাপি বা ব্রোঞ্জ ব্লাশ অন চেহারায় ঝকঝকে ভাব আনবে। ডবল চিন অনেকটাই ম্যানেজ হয়ে যাবে।

আরও পড়ুন উৎসবের সেলিব্রেশনে লাগুক রামধনুর ছোঁয়া

একটু ব্রোঞ্জার ও পাউডার লাগিয়ে নিলেই চোয়াল উঁচু দেখায়।

২) চোয়ালের হাড় হাইলাইট করুন: এটাই কিন্তু সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ। শুধু ডবল চিন নয়, মুখের আকৃতি পরিবর্তন করার ক্ষেত্রেও দারণ উপযোগী এই মেকআপ ট্রিক। নিমেষে গোল মুখকে পানপাতার আকৃতি দিতে, বেশি লম্বা মুখকে ডিম্বাকৃতি দেখাতে এর জুড়ি মেলা ভার। একটু ব্রোঞ্জার ও পাউডার লাগিয়ে নিলেই চোয়াল উঁচু দেখায়। তবে সব সময়ে ব্রাশ নীচ থেকে উপরের দিকের স্ট্রোকে টানবেন। উল্টো টানলে করলে কিন্তু পুরোটাই মাটি!

৩) নেকলাইন: যদি ঘা়ড় দেখতে ছোট লাগে তা হলে কিন্তু ডবল চিন আরও বেশি প্রকট হয়ে উঠবে। তাই ডবল চিনের সমস্যা থাকলে কলার দেওয়া বা বন্ধ গলা পোশাক এড়িয়ে চলুন। এমন পোশাক পরুন, যাতে আপনার গলার অংশ পুরোটাই দেখা যায়। গলা লম্বা দেখালে ডবল চিন বোঝা যাবে না। কলারবোন বা ক্লিভেজ দেখানো পোশাক পরলেও কিন্তু ডবল চিন থেকে নজর ফেরানো যাবে। তবে খেয়াল রাখবেন, গলার কাছে বা বুকের অংশে যেন লোম না থাকে।

চোয়ালের হাড়, কলার বোন,  আপ লাগানোর আগে কনসিলার লাইন করে দিন স্পষ্ট করে।

আরও পড়ুন ​ অষ্টমীতে যে মেয়ের সঙ্গে আইসক্রিম খাওয়ার কথা, মাস্ক পরা এ সে তো?

 ৪) লাইন আপ: মেকআপ করার সময় মুখ, গলা, কলার বোন, বুকের খাঁজে নজর দিন। কপাল-নাকের টি জোন, চোয়ালের হাড়, কলার বোন, ক্লিভেজ- মেক আপ লাগানোর আগে কনসিলার বা প্যানস্টিক দিয়ে লাইন করে দিন স্পষ্ট করে। এই সব খাঁজ প্রকট হলে আপনার চেহারা অনেক নিখুঁত দেখাবে। সব শেষে ক্লিভেজ বা গলার অংশে হালকা ব্রোঞ্জার লাগিয়ে নিতে পারেন।